1. admin@dailyindependentdialogue.com : admin :
আসাম-মিজোরাম পুলিশের লড়াই, মৃত ছয় - Daily Independent Dialogue
মঙ্গলবার, ২৬ অক্টোবর ২০২১, ১১:৪৮ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজঃ
বড় আমখোলা যুব উন্নয়ন ক্লাবের উদ্যোগে অান্তর্জাতিক কন্যা শিশু দিবস উদযাপন সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি রক্ষায় মুহাম্মাদ (সা.)-এর আদর্শ মোনালিসা মুন্নি ছোট পর্দায় প্রতিষ্ঠিত অভিনয় শিল্পী হিসাবে নিজেকে পরিচিত করতে চান। তালতলীর ২৪টি যুব ক্লাবের সদস্যদের সাথে আরডিএফ এর সম্বয়ন সভা অনুষ্ঠিত তালতলী তে ৭ দফা দাবিতে তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের তিন হাজারের অধিক শ্রমিকদের বিক্ষোভ, কর্মবিরতি মুজিবের মেয়ে’ র শুভারম্ভ মহিলা সমিতির মঞ্চে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে কিশোরীকে ধর্ষণ, যুবক কারাগারে বাংলাদেশে রাস্তায় আসছে ইলেকট্রিক গাড়ি তালতলীতে পরকীয়া প্রেমিকের সঙ্গে আপত্তিকর অবস্থায় আটক, অতঃপর ধর্ষণ মামলা তালতলীতে বিদুৎস্পৃষ্ট হয়ে স্কুল ছাত্রের মৃত্যু।

আসাম-মিজোরাম পুলিশের লড়াই, মৃত ছয়

আন্তর্জাতিক ডেস্ক।
  • Update Time : মঙ্গলবার, ২৭ জুলাই, ২০২১
  • ১১৩ Time View
উত্তর পূর্ব ভারতের দুই রাজ্য আসাম ও মিজোরামের পুলিশের মধ্যে সংঘর্ষ, গুলি, মৃত ছয়। ওই ছয় পুলিশ কর্মীই আসামের।

আসাম ও মিজোরাম পুলিশের মধ্যে ছয় ঘণ্টা ধরে লড়াই চলল। নিহত আসামের ছয় পুলিশ কর্মী। আহত ৮০।

সোমবার লায়লাপুর সীমানার কাছে আসামের দিকে আসছিলেন কিছু সরকারি কর্মী। তখন উত্তেজিত জনতা তাদের দিকে পাথর ছোড়ে। এরপর আসাম সরকার সীমানায় প্রচুর পুলিশ মোতায়েন করে। শুরু হয় দুই মুখ্যমন্ত্রীর টুইট-যুদ্ধ। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে টুইট করে মিজোরামের মুখ্যমন্ত্রী জোরামথাঙ্গা বলেন, ”আপনি দয়া করে বিষয়টি দেখুন। এখনই এই সব বন্ধ করুন।” আসামের মুখ্যমন্ত্রী হিমন্ত বিশ্বশর্মাও টুইট করে অমিত শাহকে বলেন, ”এভাবে সরকার চালানো যায় না।” দুই মুখ্যমন্ত্রী টুইটের সঙ্গে করে ভিডিও শেয়ার করেন।

এরপর শুরু হয় দুই রাজ্যের পুলিশের মধ্যে সংঘর্ষ।  আসামের অভিযোগ, মিজোরাম লায়লাপুরে জঙ্গল কেটে রাস্তা তৈরি করছে পুলিশের একটি ক্যাম্প তৈরির জন্য। আসাম সেটা চায় না। আসামের পুলিশ বাহিনীকে প্রথমে দুষ্কৃতীরা আক্রমণ করে। তারপর মিজোরাম পুলিশ আক্রমণ চালায়। তারা লাইট মেশিন গান ব‍্যবহার করে।

মিজোরাম জানিয়েছে, আসাম পুলিশ সীমানা পেরিয়ে তাদের দিকে এসে কোলাসিবে একটি পুলিশের ক্যাম্প ভেঙে দেয়। তারা জাতীয় সড়কে আসে, গাড়ি ভাঙচুর করে এবং মিজো পুলিশের উপর গুলি চালায়।

দুই দিন আগেই শিলংয়ে উত্তর পূর্বের সব রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে বৈঠক করেছিলেন অমিত শাহ। তারপর এই কাণ্ড হলো। অমিত শাহ জোরামথাঙ্গা এবং হিমন্ত বিশ্বশর্মা দুই জনের সঙ্গে ফোনে কথা বলেছেন। তাদের অবিলম্বে বিরোধ মিটিয়ে নিতে বলেছেন।

অসম ও মিজোরামের সীমানা-বিরোধ নতুন নয়। গত জুন মাসেও দুই রাজ্য বিরোধে জড়িয়েছিল। মিজোরামের সঙ্গে আসামের ১৬৪ কিলোমিটার লম্বা সীমানা রয়েছে। মিজোরামের তিন জেলা আইজল, কোলাসিব ও মামিট ও আসামের কাছার, হাইলাকান্দি ও শিলচর সীমানায় অবস্থিত। আসামের মুখ্যমন্ত্রী মঙ্গলবার শিলচর সফরে যাচ্ছেন। তিনি বলেছেন, মিজোরামের পুলিশ কীভাবে আক্রমণ করেছে, তা ক্রমশ স্পষ্ট হচ্ছে।

মিজোরাম সরকার সীমানা নির্ধারণের জন্য বাউন্ডারি কমিশন গঠন করেছে। তবে শুধু মিজোরাম নয়, মেঘালয় এবং অরুণাচলের সঙ্গেও আসামের সীমানা-বিরোধ আছে। তবে দেশের মধ্যে দুইটি রাজ্য যেভাবে সীমানা বিরোধে জড়িয়েছে, দুই রাজ্যের পুলিশের মধ্যে লড়াই হচ্ছে, পুলিশ কর্মী মারা যাচ্ছেন, তাতে বোঝা যাচ্ছে পরিস্থিতি কতটা খারাপ। আর এই সংঘর্ষ খুব একটা ভালো ছবি তুলে ধরছে না।

ঘটনা হলো, মিজোরামেও ক্ষমতাসীন জোটে বিজেপি আছে। গত বিধানসভা নির্বাচনে এখানে এমএনএফ ২৭টি আসনে জিতেছিল এবং বিজেপি একটি আসন। কংগ্রেস পাঁচটি আসন পায় এবং জেডপিএম সাতটি। আর আসামে বিজেপি-র সরকার রয়েছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category
© All rights reserved © 2021 Dailyindependentdialouge
Theme Customized BY WooHostBD